June 19, 2024 1:09 pm

৫ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

June 19, 2024 1:09 pm

৫ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

Karnatak temple tax bill: শেষ হাসি হাসল বিজেপি, ‘বিতর্কিত মন্দির বিল’ আটকে দিল বিজেপি

Facebook
Twitter
LinkedIn
Pinterest
Pocket
WhatsApp
"Karnataka# #temple# #tax# #bill# #blocked# #by# #BJP

BJP had the last laugh, BJP blocked the ‘controversial temple bill’

দেশ

দ্যা হোয়াইট বাংলা ডিজিটাল ডেস্ক : মুখ্যমন্ত্রী সিদ্দারামাইয়া সরকারকে জোর ঝটকা দিল বিজেপি। কর্নাটকের বিধানসভায় আটকে গেল বিতর্কিত মন্দির বিল। শুক্রবার সদনের উচ্চকক্ষে ভোটাভুটিতে শাসকদল কংগ্রেসকে কুপোকাত করে দেয় বিজেপি।গত বুধবার বিধানসভায় পাশ হয় ‘হিন্দু রিলিজিয়াস ইনস্টিটিউশনস অ্যান্ড চ্যারিটেবল এন্ডোমেন্ট বিল’। এই বিলটি হল,- রাজ্যের যে সব মন্দিরে বছরে কোটি টাকা বা তার বেশি আয়, তাদেরকে ১০ শতাংশ কর দিতে হবে। এই নিয়ে তুমুল বিতর্ক শুরু হয়। বিজেপি দাবি করে, এই বিল হিন্দু বিরোধী।

কর্নাটকের বিজেপি সভাপতি বিজয়েন্দ্র ইয়েদুরাপ্পার প্রশ্ন,  কেবল হিন্দু মন্দির থেকেই রাজস্ব সংগ্রহ কেন? অন্য ধর্মীয়স্থানগুলি বাদ যাবে কেন? এটা ধর্মীয় পক্ষপাতিত্ব বলে অভিযোগ ইয়েদুরাপ্পার। যদিও কর্ণাটক সরকার যুক্তি দেখায় এই অর্থ সরকাররে কোষাগারে যাবে না। ওই টাকা ধর্মীয় পরিষদের কাজে ব্যবহৃত হবে। কর্নাটকের বিধানসভায় কোন বিল পাশ হলেও উচ্চকক্ষ বিধান পরিষদের সম্মতি ছাড়া তা আইনে পরিণত হয় না। তার ফলে বিপাকে পড়েছেন মুখ্যমন্ত্রী সিদ্দারামাইয়া। কারণ উচ্চকক্ষ বিধান পরিষদের ৭৫ জন সদস্যের মধ্যে ৩৫ জন সদস্য বিজেপির, কংগ্রেসের ২৯ ও জেডিএসের ৮ সদস্য। ফলে মন্দির বিল পেশ করা হলে ভোটাভুটিতে শাসকদল কংগ্রেসকে হারিয়ে দেয় বিজেপি।

Facebook
Twitter
LinkedIn
Pinterest
Pocket
WhatsApp

Related News

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top