May 26, 2024 7:46 am

১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

May 26, 2024 7:46 am

১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

Aadhar problem hc pil :হঠাৎ করে আধার বাতিল হয়ে যাওয়া নিয়ে কম জল ঘোলা হয়নি। এবার বিষয়টি নিয়ে কলকাতা হাইকোর্টে দায়ের হল জনস্বার্থ মামলা

Facebook
Twitter
LinkedIn
Pinterest
Pocket
WhatsApp

The sudden cancellation of Aadhaar has not stirred much water. Now a public interest case has been filed in Calcutta High Court regarding the matter.

রাজ্য

দ্যা হোয়াইট বাংলা ডিজিটাল ডেস্ক:

মূলত আধার আইনের যে ধারায় (২৮এ) তা বাতিল করা হয়েছিল, সেই আইনের সাংবিধানিক বৈধতাকে চ্যালেঞ্জ করে মামলাটি দায়ের করেছে ‘এনআরসি’ বিরোধী একটি সংগঠন। তাদের দাবি আধার আইনের ওই ধারাটি বৈধ নয়।
লোকসভা ভোটের মুখে জেলায় জেলায় আধার বাতিল হওয়াকে কেন্দ্র করে ক্ষোভ উগরে দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এনিয়ে কেন্দ্রকে চিঠিও পাঠানো হয়। সুর চড়িয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেছিলেন, ‘আধার বাতিলের নেপথ্যে এনআরসি। মানুষকে বঞ্চিত হতে দেব না, যা যা করার আমরা করব। আধার কার্ড নিয়ে ছেলেখেলা করছেন, মানুষকে বঞ্চিত করার চেষ্টা। আধারের বিকল্প কার্ড দেবে রাজ্য সরকার, সরকারি সব সুযোগ-সুবিধা মিলবে। এই গা-জোয়ারি আমরা মানি না।’
প্রধান বিচারপতি টি এস শিবজ্ঞানমের ডিভিশন বেঞ্চে মামলার শুনানিতে মামলাকারীর আইনজীবী ঝুমা সেন দাবি করেন, কোনও রকম হেয়ারিংয়ের সুযোগ না দিয়েই একাধিক আধার কার্ড বাতিল করে দেওয়া হয়েছে। এমন একটি পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে আধার ছাড়া কোনও শিশুর জন্ম শংসাপত্র মিলবে না। আবার মৃতুর পর শেষকৃত্য করতে গেলেও প্রয়োজন আধারের। কিন্তু আধার আইনের যে ধারা অর্থাৎ ২৮এ-কে কার্যকর করে আধার বাতিল করা হয়েছে তার সাংবিধানিক বৈধতা নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে। আইনের এই ধারায় পাসপোর্ট আইনে বিদেশি নাগরিকদের কথা বলা হয়েছে। ২০১৬ সালের আধার আইনে এই ধারা ছিল না। ২০২৩ সালে তা সংযুক্ত করা হয়েছে। ব-কলমে এই ধারায় মাধ্যমেই নাগরিকত্ব যাচাইয়ে আধার কর্তৃপক্ষকে অসীম ক্ষমতা দেওয়া হয়েছে যা সংবিধান বিরোধী।
মামলাকারীর প্রাথমিক বক্তব্য শোনার পর আপাতত কেন্দ্র তথা অ্যটর্নি জেনারেলকে নোটিস ইস্যু করা নির্দেশ দিয়েছে প্রদান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ। ২১ মার্চ মামলার পরবর্তী শুনানি।

Facebook
Twitter
LinkedIn
Pinterest
Pocket
WhatsApp

Related News

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top