May 27, 2024 5:47 pm

১৩ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

May 27, 2024 5:47 pm

১৩ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ভারতীয় ফুটবলের সামনে কঠিন পরীক্ষা

Facebook
Twitter
LinkedIn
Pinterest
Pocket
WhatsApp

দেশ

দ্যা হোয়াইট বাংলা ডিজিটাল ডেস্ক : আগামি সপ্তাহেই এএফসি এশিয়ান কাপে মাঠে নামছে ভারতীয় ফুটবল দল। এশিয়া সেরা হওয়ার লক্ষ্যে মাঠে নামবে দঃ কোরিয়ার সন হিউয়েন মিন, জাপানের তাকেফুসো কুবো, ইরানের মেহে়দি তারেমি বা সৌদির সালেম আল দাওসারিরা। অবশ্য এই তারকাদের কারোর সঙ্গেই খেলা নেই ভারতের। আরেকটি বিষয় হল, তাদের মতো ভারতও চ্যাম্পিয়ন হওয়ার জন্য মাঠে নামবে না। অন্তত একটা ম্যাচ জিততে পারা মানেই ভারতের কাছে বড় ব্যাপার। শুনতে খারাপ লাগলেও এটাই এখন বাস্তব চিত্র হয়ে দাড়িয়েছে। প্রায় দশ বছর ধরে চলছে আইএসএলের মতো পেশাদার ফুটবল প্রতিযোগিতা। যে প্রতিযোগিতায় অবশ্য এক বছর আগে প্রমোশন প্রক্রিয়া চালু হয়েছে। ভারতের কোচ ইগর স্টিম্যাচ তো অধিকাংশ সময়ই ফুটবলার না পাওয়ার জন্য হাহুতাশ করেন। এবার অবশ্য তিনি আগে থেকেই দল পেয়েছেন। ফুটবলারদের নিয়ে অন্তত প্রতিযোগিতার দিন দশেক আগেই কাতার পৌঁছে গেছেন তিনি। গিয়েই অবশ্য আগে ভাগেই স্টিম্যাচ বলে দিয়েছেন, এই দলের থেকে বড় কিছু আশা করা অনুচিত। বাস্তবটা তিনিও ভালোই বুঝছেন। অস্ট্রেলিয়ার ফিফার র্যাঙ্কিং 25, উজবেকিস্তানে 68 এবং সিরিয়ার 91। প্রত্যেকটি প্রতিপক্ষ দলই ভারতের থেকে র্যাঙ্কিংয়ে ওপরে। অস্ট্রেলিয়া বা উজবেকিস্তানকে ছেড়ে তাই সিরিয়া ম্যাচই বাস্তবিক রুপে টার্গেট হতে চলেছে ব্লু টাইগার্সদের। এর মধ্যে আনোয়ারের চোটের জন্য না থাকা ডিফেন্সের কম্বিনেশন পুরো বদলে দিয়েছে।

শুধু রক্ষণ নিয়ে বললে হবে না। 2023 সালে 16টি ম্যাচ খেলেছে ভারত, করেছে 21টি গোল। 40 ছুঁই ছুঁই সুনীল ছেত্রী একাই করেছেন তার মধ্যে 9টি গোল। ভারতের বাকি স্ট্রাইকারদের খেলা যদি ধরা যায়, তাহলে এবারের আইএসএলে এখনও পর্যন্ত 6জন ভারতীয় স্ট্রাইকারের সম্মিলিত গোলের সংখ্যা মাত্র 8। আইএসএলের সর্বোচ্চ গোলের তালিকায় এবারে প্রথম দশের মধ্যেই নেই কোনও ভারতীয়। প্রথম কুড়ির মধ্যে রয়েছেন মাত্র দুই ভারতীয় সুনীল ছেত্রী এবং পার্থিব গগৌ। এই পরিসংখ্যানই বলে দিচ্ছে এশিয়ান কাপে আরও একবার স্টিম্যাচের ভরসা বু়ড়ো ঘোরা সুনীল ছেত্রীই। নেপোলিয়ান বোনাপার্তের মতোই দলকে যদি সুনীল মাঠে নেতৃত্ব দিয়ে ভালো কিছু করতে পারে তাহলে জাতীয় দলের গর্ব অক্ষুন্ন থাকবে, অন্যথায় এশিয়ান গেমসের মতো আরও একরাশ লজ্জাই হয়ত অপেক্ষা করছে মনবীর, ছাংতেদের সামনে। যদিও লড়াইয়ের আশ্বাস দিচ্ছেন গোলরক্ষক গুরপ্রীত সিং সান্ধু। এখন দেখার এশিয়ান গেমসের মতো বড় মঞ্চে ভালো কিছু করে দেখাতে পারে কিনা সুনীল ছেত্রী, সন্দেশ ঝিংগান, লিস্টনল কোলাসোরা।

Facebook
Twitter
LinkedIn
Pinterest
Pocket
WhatsApp

Related News

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top